আমার পথচলায় মায়ের অবদানই সবচেয়ে বেশি

বিনোদন

চিত্রনায়িকা সাচিনূর। একসময় চলচ্চিত্রই ছিলো তার আপন ঠিকানা। ছবিতেও অভিনয় করেছেন বেশ ক’টি। প্রসংশাও কুড়িয়েছেন বেশ। প্রথম ছবি ছিল শাহাদৎ হোসেন লিটল’র পরিচালনায় ‘আমি ডন’। বিপরীতে ছিলেন চিত্রনায়ক অমিত হাসান। এরপর একে একে আরো কয়েকটি ছবিতে অভিনয় করেছেন এই নায়িকা। তবে মাঝখানে অসুস্থতার কারণে শোবিজ থেকে দূরে ছিলেন।
বর্তমানে আবারো ব্যস্ত সময় পার করছেন। নিজের প্রোডাকশন হাউস ‘এস নূর মাল্টিমিডিয়া’, নাচ, নাটক, মিউজিক ভিডিও নির্মাণ এবং বিভিন্ন টেলিভিশন অনুষ্ঠানগুলোতেও অংশ নিচ্ছেন। আবরো নতুন করে চলচ্চিত্রে অভিনয়ও করছেন । এর মধ্যে একটি ছবিতে চুক্তিবদ্ধও হয়েছেন তিনি। বর্তমানে কাজ দিয়ে একের পর এক তার ঝুলিতে জমা হচ্ছে ভালো কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ সম্মাননাও। নায়িকা হিসেবে ‘বাবিসাস’, ‘জসিম গ্রুপ-এজেএফবি’ এ্যাওয়ার্ডও পেয়েছেন।
দিনের শেষের সাথে কথা হলে তিনি বলেন, ছোটবেলা থেকেই বিভিন্ন অনুষ্ঠানে অংশ নিয়েছি। নাচ এবং অভিনয় করে প্রশংসা পেয়েছি সবার। তবে আমার এই পথচলায় আমার মায়ের অবদানই সবচেয়ে বেশি। এরপর এক সময় সুযোগ হয়ে ওঠে চলচ্চিত্রে নায়িকা হওয়ার। শাহাদৎ হোসেন লিটল ভাইয়ার পরিচালনায় আমার প্রথম ছবির নাম ছিল ‘আমি ডন’। আমার বিপরীতে ছিলেন চিত্রনায়ক অমিত হাসান। এরপর আরো অনেকটি ছবিতে অভিনয় করেছি। মাঝখানে অসুস্থতার কারণে আমি শোবিজ থেকে একটু দূরে ছিলাম। এখন আবারো কাজ শুরু করেছি। এ জন্য সবার দোয়া কামনা করছি।
পাশাপাশি নিজের প্রোডাকশন হাউস ‘সাচীনূর মাল্টিমিডিয়া’ থেকে নাটক, মিউজিক ভিডিও, শর্টফিল্ম নির্মাণ করছি। আর এ ক্ষেত্রে আমি নতুনদের প্রাধান্য দিচ্ছি। কারণ আমার ভিতরে একটা জিনিস সব সময়ই কাজ করে নতুনদের সুযোগ না দিলে তারা প্রতিভা দেখাবে কি করে? সে জন্য আমি নতুনদের নিয়ে কাজ করতে পছন্দ করি।
কথা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, কয়েক বছর বিরতিতে থাকার কারণে অনেকেই আমাকে নিয়ে নানা রকম কথা বলেছেন । আমি এগুলো পাত্তা দেইনি। আমি সব সময় মনে করি; সৎ পথে থেকে কাজ করলে কেউ কোনদিন ক্ষতি করতে পারে না। ইদানিং আমাকে নিয়েও নানা রকম কথা হয়। আমি শুধু এটুকুই বলবো- আমি আমার জায়গায় ঠিক আছি, সব কিছু সময় বলে দিবে। শুধু সবার কাছে দোয়া চাই- যেন সামনের কাজ গুলোও ভালো করতে পারি।
উল্লেখ্য- সাচিনূরের নিজস্থ প্রোডাশন হাউস থেকে আগামী ১৩ অক্টোবর প্রকাশ হবে মিউজিক্যাল ফিল্ম ‘প্রেমিক বয়’। গানটিতে সাচির সাথে মডেল ছিলেন চিত্রনায়ক আদনান আদি।

Leave a Reply